১লা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ


চাটখিলে মৃত্যুর ৬ দিন পর অন্তঃসত্ত্বা নারীর লাশ কবর থেকে উত্তোলন

মোঃ রুবেল : চাটখিল উপজেলার ৮ নং নয়াখলা ইউনিয়নের নয়াখলা গ্রামে এক অন্তঃসত্ত্বা নারীর মৃত্যুর ৬ দিন পর আদালতের নির্দেশে পুলিশ কবর থেকে লাশ সোমবার দুপুরে উত্তোলন করা হয়েছে।
জানা যায়, ওই নারী নয়াখলা গ্রামের ফয়সাল হোসেন এর স্ত্রী ফারজানা আক্তার লাভনী। গত দু’বছর পূর্বে ফয়সালের সাথে একই গ্রামের মৃত বাহার হাজীর কন্যা লাভনীর বিয়ে হয়। ফয়সাল গ্লোব কোম্পানীতে কর্মরত থাকায় নোয়াখালী মাইজদী শহরে ভাড়া বাসায় তারা বসবাস করতো।
গত ১৩ জুলাই ফারাজানা আক্তার লাভনী মাইজদী শহরের ওই ভাড়া বাসায় সিলিং ফ্যানের সাথে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা করে। পরের দিন ময়নাতদন্ত ছাড়া তড়িগড়ি করে লাভনীর লাশ ফয়সালের বাড়ীতে জানাজা শেষে দাফন করা হয়।
ফয়সাল দাবী করে বলে, তার স্ত্রীর মানসিক সমস্যা রয়েছে। এ ব্যাপারে ১৪ জুলাই নোয়াখালীর সুধারাম মডেল থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয় (মামলা নং ০৩/২২)। লাভনীকে দাফনের সময় তার শারীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতের চিহ্ন ছিল বলে স্থানীয় সূত্রে জানা যায়। ময়নাতদন্ত ছাড়া লাশ দাফন করার খবর জানা জানি হলে প্রশাসনের টনক নড়ে।
স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ইব্রাহিম খলিল সোহাগ জানান, লাভনীর লাশের ময়নাতদন্ত না করার কারনে পুনরায় ময়নাতদন্তের জন্য লাভনীর লাশ উত্তোলন করা হয়েছে। তিনি আরও জানান লাভনী ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা ছিল।
চাটখিল থানার ওসি আনোয়ারুল ইসলাম লাশ উত্তোলনের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, আদালতের নির্দেশে বিজ্ঞ ম্যাজিষ্ট্রেটের উপস্থিতিতে লাভনীর লাশ উত্তোলন করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী আবদুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে।

ফেইসবুকে চাটখিল নিউজ ২৪ ডট কম


Shares